ওজন নিয়ন্ত্রণ, খাদ্য ও পুষ্টি, জীবনযাত্রা, ফিটনেস, ভেষজ, রূপচর্চা, স্বাস্থ্য সমস্যা

হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপ ও ওজন নিয়ন্ত্রণ করে গ্রিন টি!

হাজার হাজার বছর ধরে গ্রিন টি ঔষধের মতো কাজ করে আসছে। গ্রিন টি প্রথম তৈরি হয় চিনে। আপনার রোজকার ক্লান্তি দূর করা থেকে শুরু করে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখা ও বিভিন্ন রোগ ব্যাধি থেকে দূরে রাখতে গ্রিন টি-র ভূমিকা অপরিসীম।

আমরা সবাই জানি, ব্ল্যাক টি-ও শরীরের জন্য উপকারী। তাহলে গ্রিন টি কেন ব্ল্যাক টি-র থেকে পুষ্টিগুণে এগিয়ে?

ব্ল্যাক টি প্রস্তুত করতে ফারমেন্টেশন প্রক্রিয়া ব্যবহার করা হয় যা গ্রীন টি উৎপাদনে ব্যবহার হয় না। ফলে গ্রীন টি তে সর্বোচ্চ পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস ও পলি-ফেনল পাওয়া যায়। এজন্য ব্ল্যাক টি-র থেকে গ্রিন টি অপেক্ষাকৃত বেশি উপকারী।

গ্রিন টি অ্যালার্জি প্রতিরোধ করে!

গ্রীন টি-তে এপিগ্যালোক্যাটেচিন গ্যালেট ( ই জি সি জি ) নামক একটি শক্তিশালী অ্যান্টিঅ্যালার্জিক পদার্থ পাওয়া যায় যা অ্যালার্জি প্রতিরোধে খুবই কার্যকর। ২০০৭ সালে সাইটোটেকনোলোজি নামে একটি জার্নাল একটি স্টাডিতে প্রকাশ করে, গ্রীন টি-তে বিদ্যমান পলি-ফেনল পোলেন অ্যালার্জি কমাতে সাহায্য করে। ই জি সি জি অ্যালার্জি বাড়াতে সক্ষম আই জি ই রিসেপ্টরগুলোকে বাধা দেয়। গ্রিন টি তে প্রাকৃতিক ভাবেই কোয়ারসেটিন নামে একটি পদার্থ থাকে যা অ্যালার্জির লক্ষণ দূর করতে সাহায্য করে।

দৃষ্টি শক্তি বাড়ায়!

গ্রীন টি-তে উপস্থিত অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট চোখের টিস্যুর ভেতরে প্রবেশ করে চোখের কার্যক্ষমতা বাড়ায়। চোখের টিস্যু গ্রীন টি-তে উপস্থিত ক্যাটেকিন্স নামক অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট শোষণ করতে পারে। ২০০১ সালের একটি গবেষণায় পাওয়া গেছে যে গ্রীন টি চোখের ক্যাটার‍্যাক্ট-অন্ধত্ব রোধ করতে সক্ষম।

আপনি কি ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে চান?

গ্রীন টি মেটাবোলিজমের কার্যক্ষমতা বৃদ্ধি করে। পলি-ফেনল ফ্যাট অক্সিডেশনের মাত্রা বাড়িয়ে দেয় যা খাদ্যকে ক্যালোরিতে পরিণত করতে সাহায্য করে।

ডায়াবেটিক রোগীরা কেন গ্রিন টি খাবেন?

খাবার পর রক্তে সুগারের মাত্রা কমিয়ে গ্রীন টি শরীরে গ্লুকোজের মাত্রা নিয়ন্ত্রন করে যা উচ্চ মাত্রার ইনসুলিন স্পাইক এবং মেদ জমতে বাধা দেয়।

গ্রিন টি কেন হৃদরোগের জন্য উপকারী?

বিজ্ঞানীরা মনে করেন গ্রীন টি রক্তনালীর অভ্যন্তরীণ স্তরকে শিথিল রাখে। এরা হার্ট অ্যাটাক করতে সাহায্যকারী ক্লট তৈরি হওয়া থেকেও হৃৎপিণ্ডকে রক্ষা করে।

ইসোফেজিয়াল ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায় গ্রিন টি!

গ্রিন টি ইসোফেজিয়াল ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি কমিয়ে দেয়। অনেকে এটাও মনে করে থাকেন যে গ্রীন টি সাধারন কোষের কোন ক্ষতি না করে ক্যান্সারের কোষ নির্মূল করতেও সক্ষম।

কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রক গ্রিন টি!

খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমিয়ে দিয়ে অনুপাত ঠিক রাখে।

অ্যালঝাইমার এবং পারকিনসন প্রতিরোধ করে গ্রিন টি!

গবেষণায় পাওয়া গেছে যে গ্রীন টি ব্রেইন কোষগুলোকে রক্ষা করে এবং ক্ষতিগ্রস্ত ব্রেইন কোষগুলোকে সারিয়ে তোলে। যার ফলে অ্যালঝাইমার এবং পারকিনসন রোগ কম দেখা দেয়।

দাঁত ভাল রাখুন গ্রিন টি খেয়ে!

গবেষণায় পাওয়া গেছে যে গ্রীন টি-তে থাকা ক্যাটেকিন ক্ষতিকর ভাইরাস এবং ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে যা থ্রোট ইনফেকশন, ডেন্টাল ক্যারিজ এবং অন্যান্য দাঁতের সমস্যা থেকে রক্ষা করে।

আপনার রক্তচাপ কি নিয়ন্ত্রণে আছে?

নিয়মিত গ্রীন টি রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে।

বিষণ্ণতা কমাতে গ্রিন টি খান!

চা পাতায় প্রাকৃতিকভাবে থেনাইন নামক এক প্রকারের অ্যামিনো অ্যাসিড থাকে। এটা আমাদের শরীর ও মনকে শিথিল রাখতে সাহায্য করে।

অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টিভাইরাল পানীয় গ্রিন টি!

গ্রীন টি-তে প্রাপ্ত ক্যাটেকিন খুবই শক্তিশালী অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টিভাইরাল পদার্থ যা “ইনফ্লুয়েঞ্জা থেকে ক্যান্সার” অর্থাৎ সকল ধরনের রোগের চিকিৎসায় কার্যকরী।

ত্বকের যত্ন

অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং জ্বালা-পোড়া কমানোর উপাদান থাকার কারনে গ্রীন টি মানুষের ত্বকের বলিরেখা এবং বয়স বাড়ার লক্ষণগুলো কমিয়ে দেয়। মানুষ এবং পশুপাখি উভয়ের ক্ষেত্রেই দেখা গেছে যে গ্রীন টি গ্রহন করলে সূর্যের তাপের ক্ষতিকর প্রভাব থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।

গ্রিন টি খান পরিমান মতো!

অনেক উপকার থাকা সত্ত্বেও পরিমাণমত না খেলে গ্রীন টি আপনার কোন উপকারে আসবে না। এক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞরা বিভিন্ন মতামত দিয়েছেন। কেউ বলেন ২ কাপ তো কেউ ৫ আবার অনেকে বলেন ১০ কাপ। তবে ১০ কাপ করে খেতে চাইলে একটি গ্রীন টি সাপ্লিমেন্ট নিয়ে নেওয়া ভাল।

গ্রিন টি-তে ক্যাফেইন থাকে। সেক্ষেত্রে আপনি যদি ক্যাফেইনে সংবেদনশীল হন তাহলে দিনে এক কাপ খাওয়াই যথেষ্ট।

এর মধ্যে ট্যানিনস্‌ রয়েছে যা আয়রন এবং ফলিক অ্যাসিড শোষণের মাত্রা কমিয়ে দেয়। তাই যারা গর্ভবতী বা বাচ্চা নিতে চাচ্ছেন তাদের গ্রীন টি গ্রহণ থেকে বিরত থাকাই শ্রেয়।

Comments

comments

Previous Post Next Post

You Might Also Like

Leave a Reply