জীবনে সফল হতে গিয়ে বাধার সম্মুখীন হচ্ছেন?
আচরণগত সমস্যা, কর্মজীবন, জীবনযাত্রা

জীবনে সফল হতে গিয়ে বাধার সম্মুখীন হচ্ছেন?

“সফলতা” নামক সোনার হরিণ কে না চায়? কিন্তু অন্ধের মত সেই হরিণের পিছনে ছুটলেই কি সফলতা ধরা দেবে? ভেবে দেখুন, সফলতা আর আপনার মাঝে বেশ কিছু বাধা রয়েছে যা অতিক্রম করে লক্ষ্যে পৌঁছানো অনেক সময় অসম্ভব হয়ে পড়ে।

জীবনে সফল হতে গেলে এইসব বাধাগুলোকে মাড়িয়ে সামনে এগিয়ে যেতে হবে। কিভাবে?

নিজেকে নিয়েই সন্দেহ করছেন?

জীবনে সফল হতে গেলে প্রথমেই প্রয়োজন আত্মবিশ্বাস। নিজের কাজের প্রতি যখন আপনার নিজেরই সন্দেহ, তখন অন্যেরা আপনার কাজে কিভাবে আস্থা পাবে? এরকম অনেকেই আছেন যাদের ভবিষ্যৎ যথেষ্ট সম্ভাবনাপূর্ণ হওয়া সত্ত্বেও জীবনে সফল হতে পারেন নি।

আপনার চিন্তা ভাবনা কি সব সময় নেতিবাচক?

আপনি জানেন কি, আমরা বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই নিজেদের অজান্তে নেতিবাচক চিন্তা করি? জীবনে সফল হতে নেতিবাচক চিন্তাগুলো সত্যিই নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। যারা এই চিন্তাগুলোকে পজিটিভ করতে পারে না, তারা সফলতা থেকে পিছিয়ে পড়তে থাকে।

অকৃতকার্য হওয়ার ভয় সবসময় ঘিরে থাকে?

অংশ নেয়ার আগেই “হেরে গেলে কী হবে” ধরনের চিন্তা মনে এসে ভিড় করে? হেরে যাওয়ার ভয়ে যদি অংশগ্রহণই না করেন, তাহলে জিতবেন কিভাবে!

জন্মের পরে যদি পড়ে যাওয়ার ভয় করতেন তাহলে জীবনে হাঁটাই শিখতে পারতেন না। হারতে ক্ষতি নেই কিন্তু হারার ভয়ের মাঝে জয় নেই।

নিজের সাথে আশেপাশের সবাইকে তুলনা করবেন না।

যে অন্যকে কটাক্ষ করে, সে নিজেই হেরে যাওয়ার ভয়ে ভীত। অন্যকে নিচু বা খারাপ প্রমাণ করে কখনও উপরে ওঠা যায় না। জীবনে সফল হতে মানুষের ভাল গুণকে শ্রদ্ধা করুন এবং সেটা নিজের মধ্যে নেওয়ার চেষ্টা করুন। হাসি খুশি থাকুন দেখবেন কাজে কেমন ফুর্তি আসে।

সময় নষ্ট করা।

সময়ের কাজ সময়ে করা জরুরী। এখন না পরে, পরে না বিকালে, বিকালে না কাল, কাল না পরশু এভাবে চলতে থাকলে কাজে ভাটা পড়ে।

জীবনে সফল হতে সময় মাফিক কাজ করতে হবে। সারা বছর পড়াশুনা না করে শুধু পরীক্ষার আগের রাতে পড়লে ভাল রেজাল্ট হওয়ার সম্ভবনা ক্ষীণ হয়ে আসে। অফিসে প্রোমোশন চান অথচ ঠিকমত কাজ করেন না তাহলে কি প্রোমোশন হবে!

সকলকে খুশি করে চলা সম্ভব?

“আমি সবাইকে খুশি রাখব”- এটা মাথায় থাকলে আপনি শুধু সবাইকে খুশিই করে যাবেন, আপনার কোন মূল্যায়ন হবেনা। অন্যকে সাহায্য করতে কোন বাধা নেই তবে তা যেন নিজের কাজের ক্ষতি না করে হয় সেটা খেয়াল রাখবেন।

আপনি কি অলস?

অলস ব্যক্তিরা সফলতার উলটো দিকে ধাবিত হন। আলস্য শুধুমাত্র শারীরিক না মানসিকও হয়। অনেকে আছেন, শারীরিক ভাবে অক্ষম কিন্তু তারা জীবনে সফল। জীবনে সফল হতে আপনাকে শরীর এবং মনে কর্মঠ হতে হবে। তবেই আপনি সর্বোচ্চ সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

আপনি কি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে যাচ্ছেন?

জীবনে সফল হতে হলে যা করবেন, যেখানেই যাবেন, একটি নির্দিষ্ট লক্ষ্য নির্ধারণ করুন। যেটাই আপনার জীবনের লক্ষ্য হোক না কেন সেটাকেই ধরে রাখুন। লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে পড়লে সফলতা দূরে সরে যেতে থাকে।

তবে এমনও নয়, যেটা আপনার লক্ষ্য তার বাইরে আপনি কিছু করতে পারবেন না। অবশ্যই পারবেন, তবে সেটা যেন আপনার মূল লক্ষ্যের পরিপন্থী না হয়।

Comments

comments

Previous Post Next Post

You Might Also Like

Leave a Reply