গর্ভাবস্থায় ধূমপান! কী ক্ষতি করছেন ভেবে দেখুন
গর্ভাবস্থা এবং মাতৃদুগ্ধ, গাইনী সমস্যা এবং নারী স্বাস্থ্য, নবজাতক এবং শিশুর যত্ন

গর্ভাবস্থায় ধূমপান! কী ক্ষতি করছেন ভেবে দেখুন

ভাবছেন আমিও ধূমপান করিনা, আমার স্বামীও করেনা তাহলে তো কোন সমস্যা নেই। হয়তোবা। কিন্তু শুধুমাত্র প্রত্যক্ষ ধূমপানই নয় পরোক্ষ ধূমপানও আপনার সন্তানের ক্ষতিসাধন করতে পারে।

সাংসারিক জীবনের সবচেয়ে সুখকর মুহূর্তের কথা যদি বলতে হয় তাহলে সবাই কোন দ্বিধা ছাড়াই বলে উঠবেন প্রথম সন্তানের জন্ম। এ যেন প্রকৃতির দেওয়া সবচেয়ে বড় এবং অকৃত্রিম উপহার। কিন্তু গর্ভাবস্থায় ধূমপান আপনার কাছ থেকে আপনার এই কলিজার টুকরা উপহারটি কেড়ে নিতে পারে।

চলুন জেনে নিই গর্ভাবস্থায় ধূমপান করলে কী কী ক্ষতি হতে পারে-

গর্ভাবস্থায় ধূমপান

সবার প্রথমে মনে রাখবেন, ধূমপানের কারণে আপনি সন্তানের জননী হওয়ার সম্ভাবনা হারিয়ে ফেলতে পারেন। তাই বাচ্চা নেওয়ার আগে ধূমপান বর্জনের চেষ্টা করুন।

গর্ভাবস্থায় ধূমপান করলে গর্ভপাত হওয়ার সম্ভাবনা বৃদ্ধি পায়। সাধারণত প্রথম ৩ মাস থেকে ২০ সপ্তাহ পর্যন্ত এ সম্ভাবনা থাকে।

ধূমপানের কারণে একটপিক প্রেগন্যান্সি দেখা দিতে পারে যা জীবন নাশক হতে পারে।

ধূমপানের কারণে প্লাসেন্টায় সমস্যা দেখা দেয় যা গর্ভবতী মা ও শিশু উভয়ের জন্য প্রাণঘাতী হতে পারে।

প্লাসেন্টা ছিঁড়ে গেলে জরায়ুতে সঠিক মাত্রায় খাদ্যের পুষ্টি পৌঁছাতে পারে না এবং প্রচুর রক্তক্ষরণ হতে পারে।

সময়ের আগে বাচ্চা প্রসব হয়ে যেতে পারে যা বাচ্চার জন্য ঝুঁকিপূর্ণ হতে পারে।

গবেষণায় দেখা গেছে যে গর্ভাবস্থায় ধূমপান করলে বা গর্ভবতী মায়ের আশেপাশে ধূমপান করা হলে ২০-৭০ শতাংশ সময় বাচ্চার হৃদরোগ হওয়ার ঝুঁকি থাকে। এছাড়া আরও বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিতে পারে।

বাচ্চার ওজন স্বাভাবিকের তুলনায় কম হতে পারে।

উপায়

গর্ভের বাচ্চাকে ধূমপানের সমস্যা থেকে বাঁচানোর একমাত্র উপায় ধূমপান ত্যাগ করা।

Comments

comments

পূর্ববর্তী পোস্ট পরবর্তী পোস্ট

আপনি হয়ত এগুলো পছন্দ করতে পারেন