গবেষণা, জীবনযাত্রা, সাম্প্রতিক

চোখের চিকিৎসা করবে কন্ট্যাক্ট লেন্স !

কন্ট্যাক্ট লেন্স পড়তে ভালোবাসেন? কিন্তু চোখের সম্ভাব্য ক্ষতির কথা চিন্তা করে সেই সখ মাটি চাপা দেন, তাইতো? তবে, যদি বলি এই কন্ট্যাক্ট লেন্স হতে পারে আপনার চোখের অন্যতম প্রধান চিকিৎসার উপায়, তাহলে নিশ্চই অবাক হবেন! চলুন, এরকম একটি আবিষ্কারের গল্প বলি আজ।

হার্ভার্ড মেডিকেল স্কুলের বিজ্ঞানীরা এক ধরনের বিশেষ কন্ট্যাক্ট লেন্স আবিষ্কার করেছেন। এটি এক মাসেরও বেশি সময় ধরে নিয়মিত চোখে অ্যান্টিবায়োটিকের ডোজ দিতে থাকবে।

বায়োডিগ্রেডেবল পলিমার ফিল্মের সাথে অ্যান্টিবায়োটিক মিশিয়ে তার উপর হাইড্রোজেলের প্রলেপ ব্যবহার করা হয় এই ধরনের লেন্সে। ধীরে ধীরে এই ফিল্মটি থেকে ১৩৪ মাইক্রোগ্রাম করে অ্যান্টিবায়োটিক নিঃসৃত হতে থাকে। পরবর্তী ৩০ দিন পর্যন্ত এ প্রক্রিয়া অনবরত এবং স্বয়ংক্রিয় ভাবে চলতে থাকে।

বেশির ভাগ চোখের চিকিৎসায় ড্রপ ব্যবহার করা হয়, কিন্তু অধিকাংশ ক্ষেত্রে এ পদ্ধতিটি খুব বেশি কার্যকর হয় না। এসব ক্ষেত্রে মাত্র ১ থেকে ৭ শতাংশ ঔষধ শোষিত হয়। কারণ বেশির ভাগ ঔষধই চোখে স্থায়ী হয় না।

তাছাড়া বেশির ভাগ মানুষই চোখের ড্রপ ব্যবহার করতে গিয়ে অনেক ঝামেলা পোহান এবং প্রায়ই ভুলে যান। এই কারণে বিজ্ঞানীরা মনে করেন এই নতুন কন্ট্যাক্ট লেন্স পদ্ধতি খুব সহজেই ব্যবহার করা যাবে এবং অত্যাধিক কার্যকরীও হবে।

এই ধরনের কন্ট্যাক্ট লেন্স এখনও বাজারজাত করা হয় নি। আশা করা যাচ্ছে, অনতিবিলম্বেই ক্রেতারা এটি কিনে ব্যবহার করতে পারবেন।

Comments

comments

Previous Post Next Post

You Might Also Like

Leave a Reply