জীবনযাত্রা, সামাজিক সচেতনতা, সাম্প্রতিক

এটিএম কার্ড (ATM) ব্যবহারে সাবধান হোন

সম্প্রতি এটিএম কার্ড -এর আতংকে আছেন বাংলাদেশের প্রায় ৯০ লাখ কাস্টোমার। এত কষ্ট করে টাকা আয় করে সেটা ব্যাংকে রাখা হয় যেন তা নিরাপদে থাকে, কিন্তু সেই ব্যাংকের এটিএম বুথের মাধ্যমে যদি কেউ জালিয়াতি করে জমানো সব টাকা নিয়ে যায় তখন কেমন লাগবে?

জানি কারো ভালো লাগবেনা। তাহলে এখন কী করবেন? কীভাবে নিজের টাকা নিরাপদে রাখবেন? আবার বুথের থেকে টাকা না তুললেও সময়মত টাকা পাওয়া যাচ্ছে না। এর সমাধান জানতে হলে বিস্তারিত পড়ুন-

কীভাবে আপনার এটিএম কার্ড থেকে জালিয়াতি করা সম্ভব

এটিএম কার্ডে এক ধরনের ম্যাগনেটিক স্ট্রাইপ থাকে যার মাধ্যেমে আপনার অ্যাকাউন্টের সকল তথ্য প্রতারকের নিকট চলে যায়।

তারা এটিএম কার্ড ঢোকানোর স্থানে অত্যন্ত ক্ষুদ্র ডিভাইস ব্যবহার করে যার মাধ্যমে এই সকল তথ্য তাদের কাছে পৌঁছে যায়।

এটিএম ম্যাশিনের উপর থেকে একটি গোপন ক্যামেরা কি-প্যাডের দিকে লক্ষ্য করে রাখা থাকে। ফলে তারা আপনার পিন কোড পেয়ে যায়।

এটিএম কার্ড ব্যবহারে সাবধানতা

কার্ডটি ঢোকানোর আগে ভালো করে দেখে নিন, কোন ধরনের সমস্যা মনে হলে ওই ম্যাশিনে কার্ডটি না ঢোকানোই শ্রেয়।

কার্ড ঢোকানোর স্থানে কোনরূপ কাটাকাটি, ঘষা দাগ বা অন্য কোন ধরনের সমস্যা থাকে তাহলে কার্ড ঢোকাবেন না।

পিন নম্বর দেওয়ার সময় হাত দিয়ে ঢেকে রাখুন।

যত তাড়াতাড়ি সম্ভব টাকা বের করে চলে আসুন।

Comments

comments

Previous Post Next Post

You Might Also Like

মন্তব্য বন্ধ আছে।